ঢাকা ০৬:৩৫ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১১ জুলাই ২০২৪, ২৭ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

সখীপুরে নিখোঁজের পর মাদ্রাসা ছাত্রীর মৃতদেহ উদ্ধার

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৬:০৪:৪৪ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২২ মে ২০১৮ ১৬ বার পড়া হয়েছে

সখীপুর প্রতিনিধিঃ টাঙ্গাইলের সখীপুরে নিখোঁজের ৭ ঘণ্টা পর বাড়ির পাশের পুকুর থেকে হুমাইয়া আক্তার (১৬) নামের এক মাদরাসা ছাত্রীর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার দুপুরে দিঘীরচালা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।হুমায়ইয়া ওই গ্রামের ইদ্রিস আলীর মেয়ে এবং স্থানীয় রাবেয়া বুশরী মহিলা মাদরাসার ছাত্রী ছিল এ ঘটনায় নিহতের পরিবার ও এলাকাবাসীর মধ্যে শোকের ছায়া নেমে এসেছে। পরিবার জানায়, সোমবার রাতে খাবার শেষে বাবা-মার সাথে একই ঘরে ঘুমিয়ে পড়ে হুমাইয়া। মঙ্গলবার ভোরে সেহরি খাওয়ার জন্য বাবা-মা উঠে হুমায়াকে ঘরে না পেয়ে আশপাশের বাড়িতে খুঁজতে থাকে। পরদিন সকাল ১১টায় বাড়ির পাশে পুকুরে ভাসমান অবস্থায় হুমায়ার লাশ দেখতে পান।খবর পেয়ে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য টাঙ্গাইল মর্গে পাঠায়।হুমায়ার বাবা ইদ্রিস আলী জানান, তার মধ্যে জ্বিনের আছর ছিলো। প্রায়ই সে দিন ও রাতের বেলায় বাড়ির এদিক- সেদিক অজ্ঞান হয়ে পড়ে থাকতো।সখীপুর থানার ওসি (তদন্ত) গোলাম হোসেন বলেন, লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়। প্রতিবেদনে আসলেই মৃত্যুর প্রকৃত রহস্য জানা যাবে।থানায় অপমৃত্যু মামলা হয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

সখীপুরে নিখোঁজের পর মাদ্রাসা ছাত্রীর মৃতদেহ উদ্ধার

আপডেট সময় : ০৬:০৪:৪৪ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২২ মে ২০১৮

সখীপুর প্রতিনিধিঃ টাঙ্গাইলের সখীপুরে নিখোঁজের ৭ ঘণ্টা পর বাড়ির পাশের পুকুর থেকে হুমাইয়া আক্তার (১৬) নামের এক মাদরাসা ছাত্রীর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার দুপুরে দিঘীরচালা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।হুমায়ইয়া ওই গ্রামের ইদ্রিস আলীর মেয়ে এবং স্থানীয় রাবেয়া বুশরী মহিলা মাদরাসার ছাত্রী ছিল এ ঘটনায় নিহতের পরিবার ও এলাকাবাসীর মধ্যে শোকের ছায়া নেমে এসেছে। পরিবার জানায়, সোমবার রাতে খাবার শেষে বাবা-মার সাথে একই ঘরে ঘুমিয়ে পড়ে হুমাইয়া। মঙ্গলবার ভোরে সেহরি খাওয়ার জন্য বাবা-মা উঠে হুমায়াকে ঘরে না পেয়ে আশপাশের বাড়িতে খুঁজতে থাকে। পরদিন সকাল ১১টায় বাড়ির পাশে পুকুরে ভাসমান অবস্থায় হুমায়ার লাশ দেখতে পান।খবর পেয়ে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য টাঙ্গাইল মর্গে পাঠায়।হুমায়ার বাবা ইদ্রিস আলী জানান, তার মধ্যে জ্বিনের আছর ছিলো। প্রায়ই সে দিন ও রাতের বেলায় বাড়ির এদিক- সেদিক অজ্ঞান হয়ে পড়ে থাকতো।সখীপুর থানার ওসি (তদন্ত) গোলাম হোসেন বলেন, লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়। প্রতিবেদনে আসলেই মৃত্যুর প্রকৃত রহস্য জানা যাবে।থানায় অপমৃত্যু মামলা হয়েছে।