ঢাকা ০৫:৫৬ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ০৮ জুলাই ২০২৪, ২৩ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

কালিহাতীতে আলোচিত সলিট হত্যা মামলার অন্যতম আসামী গ্রেফতার

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৫:৪৮:০১ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৬ মে ২০১৮ ১৮ বার পড়া হয়েছে

 

সোহেল রানা, কালিহাতী প্রতিনিধিঃ টাঙ্গাইলের কালিহাতী উপজেলার রামপুরে আলোচিত সলিট হত্যা মামলার অন্যতম আসামী বাদশা মিয়া (৫০) কে গ্রেফতার করেছে কালিহাতী থানা পুলিশ। সে উপজেলার রামপুর গ্রামের আব্বাস আলীর ছেলে।

কালিহাতী থানার অফিসার ইনচার্জ মীর মোশারফ হোসেন জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে কালিহাতী উপজেলার আলোচিত সলিট হত্যা মামলার অন্যতম আসামী বাদশা মিয়া কে উপজেলার রামপুর গ্রাম থেকে ২৬মে শনিবার ভোরে মামলার তদন্তকারী অফিসার এসআই/মেহেদী হাসান গ্রেফতার করে আদালতের মাধ্যমে ০৭(সাত) দিনের পুলিশ রিমান্ডের আবেদন করা হয়েছে।
উল্লেখ্য, ২০১৭ সালে ১০জানুয়ারী কালিহাতী থানা পুলিশের সোর্স শফিকুল ইসলাম ওরফে সলিট উপজেলার বেহালাবাড়ী বোনের বাড়ি থেকে নিঁেখাজ হন। তারই ধারাবাহিকতায় সলিটের বড় ভাই রমজান আলী কালিহাতী থানায় নিখোঁজ সংক্রান্ত একটি সাধারণ ডাইরী করেন। পরে রমজান আলী টাঙ্গাইল আদালতে উপজেলার কুকরাইল গ্রামের সলিট এর বন্ধু রায়হান কে আসামী করে একটি গুম মামলা দায়ের করেন। ঐ মামলার প্রেক্ষিতে কালিহাতী থানা পুলিশ উপজেলার সাতবিল থেকে নিহত শফিকুল ইসলাম ওরফে সলিট এর কংকাল উদ্ধার করেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

কালিহাতীতে আলোচিত সলিট হত্যা মামলার অন্যতম আসামী গ্রেফতার

আপডেট সময় : ০৫:৪৮:০১ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৬ মে ২০১৮

 

সোহেল রানা, কালিহাতী প্রতিনিধিঃ টাঙ্গাইলের কালিহাতী উপজেলার রামপুরে আলোচিত সলিট হত্যা মামলার অন্যতম আসামী বাদশা মিয়া (৫০) কে গ্রেফতার করেছে কালিহাতী থানা পুলিশ। সে উপজেলার রামপুর গ্রামের আব্বাস আলীর ছেলে।

কালিহাতী থানার অফিসার ইনচার্জ মীর মোশারফ হোসেন জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে কালিহাতী উপজেলার আলোচিত সলিট হত্যা মামলার অন্যতম আসামী বাদশা মিয়া কে উপজেলার রামপুর গ্রাম থেকে ২৬মে শনিবার ভোরে মামলার তদন্তকারী অফিসার এসআই/মেহেদী হাসান গ্রেফতার করে আদালতের মাধ্যমে ০৭(সাত) দিনের পুলিশ রিমান্ডের আবেদন করা হয়েছে।
উল্লেখ্য, ২০১৭ সালে ১০জানুয়ারী কালিহাতী থানা পুলিশের সোর্স শফিকুল ইসলাম ওরফে সলিট উপজেলার বেহালাবাড়ী বোনের বাড়ি থেকে নিঁেখাজ হন। তারই ধারাবাহিকতায় সলিটের বড় ভাই রমজান আলী কালিহাতী থানায় নিখোঁজ সংক্রান্ত একটি সাধারণ ডাইরী করেন। পরে রমজান আলী টাঙ্গাইল আদালতে উপজেলার কুকরাইল গ্রামের সলিট এর বন্ধু রায়হান কে আসামী করে একটি গুম মামলা দায়ের করেন। ঐ মামলার প্রেক্ষিতে কালিহাতী থানা পুলিশ উপজেলার সাতবিল থেকে নিহত শফিকুল ইসলাম ওরফে সলিট এর কংকাল উদ্ধার করেন।