টাঙ্গাইলে ক্লিনিক মালিকের বস্তাবন্দী গলাকাটা লাশ উদ্ধার

সোনালী বাংলাদেশ নিউজ
সম্পাদনাঃ ১৮ নভেম্বর ২০২০ - ০৫:০২:৩৩ পিএম

সোনালী বাংলাদেশ নিউজ ডেস্ক :
টাঙ্গাইলের দেলদুয়ারে আনিসুর রহমান আনিস (৪৮) নামের এক ক্লিনিক মালিককে গলাকেটে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। মঙ্গলবার বিকেলে দেলদুয়ারের লাউহাটি ইউনিয়নের পাচুরিয়া ধলেশ্বরী নদীর সংযোগ খাল থেকে বস্তাবন্দী অবস্থায় তার লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। সে লাউহাটি ইউনিয়নের হেরেন্দ্রপাড়া গ্রামের কোরবান আলীর ছেলে।

নিহতের স্ত্রী মোরছানা আক্তার জানান, দীর্ঘদিন বিদেশে ছিল আনিস। কয়েক বছর আগে দেশে এসে লাউহাটি বাজারে জনসেবা ক্লিনিক নামে একটি ক্লিনিক দিয়ে ব্যবসা শুরু করেন। এর সাথে তিনি জমি ক্রয় বিক্রয়ের ব্যবসাও করতেন। গত সোমবার দুপুরে বাড়ি থেকে বাজারে যাওয়ার কথা বলে বের হন। সে রাতে আর বাড়ি ফিরে আসেনি। রাতে হয়ত কোন কাজ আছে বলে সে বাড়িতে ফিরেনি এমনটাই মনে করে আমরা তাকে আর খোঁজাখুঁজি করেনি। বার বার তার মোবাইলে ফোন দিয়েও পাওয়া যায়নি। একটি মামলা থাকায় আমি মঙ্গলবার টাঙ্গাইল আদালতে হাজিরা দিতে যাই। বিকেলে শুনি বাড়ির পাশের খাল থেকে তার লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে তাকে হত্যা করা হয়ে থাকতে পারে বলে জানান নিহতের স্ত্রী।

দেলদুয়ার থানার ওসি সাদেুল ইসলাম জানান, পাচুরিয়া ধলেশ্বরী নদীর সংযোগ খালে বস্তাবন্দি অবস্থায় একটি লাশ দেখতে পেয়ে এলাকাবাসী পুলিশকে খবর দেয়। বিকেলে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে লাশ উদ্ধার করে টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠায়। কেন কি কারণে হত্যা করা হয়েছে পুলিশ তা খতিয়ে দেখছে এবং হত্যাকা-ের সাথে জড়িতদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

সর্বশেষ
জনপ্রিয় খবর
%d bloggers like this: